Download WordPress Themes, Happy Birthday Wishes
Home / Featured / মিশরের আল-আজহারে বৃত্তির জন্য মনোনীত ১২ বাংলাদেশি

মিশরের আল-আজহারে বৃত্তির জন্য মনোনীত ১২ বাংলাদেশি

Share This:

অনলাইন:

মিসরের আল-আজহার ইনস্টিটিউটের শিক্ষাবৃত্তির আওতায় ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক ও মাস্টার্স পর্যায়ের বৃত্তি পেয়েছেন বাংলাদেশের ১২ শিক্ষার্থী। মাস্টার্স ও আন্ডারগ্র্যাজুয়েট প্রোগ্রামে এই শিক্ষার্থীরা বৃত্তি পেয়েছেন। ২২ সেপ্টেম্বরে মনোনীত মোট ১২ শিক্ষার্থীর নাম প্রকাশ করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগ।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে স্কলারশিপ-সংক্রান্ত সব তথ্য দেওয়া রয়েছে। মাস্টার্স প্রোগ্রামে বৃত্তি পেয়েছেন মুমতাহিনা খাতুন ও মো. আল আমিন।

আন্ডারগ্র্যাজুয়েট প্রোগ্রামে বৃত্তি পেয়েছেন মো. রাকিবুল হাসান, মো. রাজীব হাসান রানা, মুহাম্মদ সিফাত উল্লাহ, মাহমুদুর রহমান, শাহ গোলাম দস্তগির তৌহিদুল ইসলাম, মোহাম্মদ মুয়াজ, হাসান আহমেদ, এনামুল হাসান ও মীর সাকিব খলিল।

আল–আজহার বিশ্ববিদ্যালয় অন্যতম সেরা শিক্ষাকেন্দ্র হিসেবে বিবেচ্য। ফাতেমি খিলাফতের সময় ৯৭১ খ্রিষ্টাব্দে কোরআন ও ইসলামি আইনশিক্ষার জন্য এই শিক্ষাকেন্দ্র প্রতিষ্ঠা করা হয়েছিল। বর্তমানে সেক্যুলার বিষয়াদিও কারিকুলামে সন্নিবেশিত আছে।

বিজ্ঞাপন

মিসরের সাবেক প্রেসিডেন্ট জামাল আবদেল নাসের ১৯৬১ সালে আল–আজহারকে বিশ্ববিদ্যালয়ে রূপান্তর করেছিলেন এবং অনেক সেক্যুলার বিষয়ও এর অন্তর্ভুক্ত হয়। যেমন ব্যবসা-বাণিজ্য, অর্থনীতি, বিজ্ঞান, ফার্মাসি, মেডিসিন, প্রকৌশল, কৃষি ইত্যাদি। মিসরের বাইরে ফিলিস্তিনের গাজা এবং কাতারের দোহায় আল–আজহার বিশ্ববিদ্যালয়ের শাখা রয়েছে।

বর্তমানে আল–আজহারের ১৫ হাজার ১৫৫ শ্রেণিকক্ষে ৩০ হাজারের বেশি শিক্ষক পাঠদান করেন। তাঁদের কাছ থেকে পাঠ গ্রহণ করেন পাঁচ লাখের বেশি শিক্ষার্থী।
শিক্ষার্থীদের ২০ শতাংশ বিদেশি। বর্তমানে ১০২টি দেশের শিক্ষার্থী আল–আজহারে লেখাপড়া করছেন। শিক্ষকসহ আল-আজহারের কর্মচারী ও কর্মকর্তাদের সংখ্যা প্রায় ১ লাখ ৩১ হাজার। তবে আল-আজহারের অধীন মিসরের প্রায় চার হাজার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান পরিচালিত হয়। এ হিসাবে আল–আজহারের বর্তমান শিক্ষার্থী ২০ লাখের মতো।

Submit Your Comments

x

Check Also

"How to go to australia study"

Pilot plans to bring international students back to Australia now in final stage

Australia is hammering out the final details of two pilot programmes which ...